ঢাকা ১০:০৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বাংলাদেশে তেল শোধনাগার স্থাপন ও বিনিয়োগে আগ্রহ প্রকাশ কুয়েতের

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০২:৩৬:১৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ৫ অক্টোবর ২০২০ ৫০৬ বার পড়া হয়েছে
ভয়েস একাত্তর অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ভয়েস ডিজিটাল ডেস্ক

কুয়েতের নবনিযুক্ত আমির শেখ নাওয়াফ আল-আহমাদ আস-সাবাহর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী ড. এ. কে. আব্দুল মোমেন। এ সময় সদ্য প্রয়াত আমির সাবাহ আল-আহমাদ আল-জাবের আল-সাবাহ’র মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে বাংলাদেশের সরকার, জনগণ ও প্রধানমন্ত্রীর শোক বার্তা পৌছে দেন ড. মোমেন। শেখ সাবাহ’র মৃত্যুতে বাংলাদেশে রাষ্ট্রীয় শোক পালনের বিষয়টিও নতুন আমিরকে অবহিত করেন তিনি। বিদেশমন্ত্রী উল্লেখ করেন, প্রাক্তন আমির প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রতি অত্যন্ত উদার ছিলেন। এসময় তিনি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে নবনিযুক্ত আমিরকে অভিন্দন জানান এবং করোনা পরবর্তীকালে তাঁকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ জানান। প্রবাসী বাংলাদেশিদের সহযোগিতার জন্য কুয়েতের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন ড. মোমেন। সাক্ষাৎকালে ড. মোমেন উল্লেখ করেন, ১৯৭৪ সালে তৎকালীন বিদেশমন্ত্রী ও সদ্যপ্রয়াত আমির শেখ সাবাহ বাংলাদেশে এসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ওআইসি’র সম্মেলনে নিয়ে গিয়েছিলেন। এটা বাংলাদেশ ও কুয়েতের সম্পর্কের ক্ষেত্রে একটি যুগান্তকারী ঘটনা এবং এরপর অনেক মুসলিম দেশ বাংলাদেশকে স্বীকৃতি দেয়। বাংলাদেশ ও কুয়েতের সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক অধিকতর সুদৃঢ় হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী। আমিরকে লেখা বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদের দু’টি চিঠি হস্তান্তর করেন ড. মোমেন। এতে রাষ্ট্রপতি সদ্য প্রয়াত আমিরের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ ও নতুন আমিরকে অভিনন্দন জানান।
বিদেশমন্ত্রী ড. আহমাদ নাসের আল-মোহাম্মেদ আল-আহমেদ আল-জাবের আল-সাবাহ’র সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন ড. মোমেন। কুয়েত ও বাংলাদেশের মধ্যে ফ্লাইট চালু না হওয়ায় ছুটিতে বাংলাদেশে এসে আটকে পড়েছেন। বিষয়টি কুয়েত প্রবাসী বাংলাদেশিদের দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দেখা দিয়েছে। দ্রুততম সময়ে বাংলাদেশের সঙ্গে কুয়েতের ফ্লাইট চালু করতে কুয়েতের বিদেশ মন্ত্রীকে অনুরোধ জানান ড. মোমেন। কুয়েতের বিদেশমন্ত্রী বিষয় দু’দিন পর সভা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে উল্লেখ করেন।
ড. মোমেন কুয়েতকে বাংলাদেশে তেল পরিশোধনাগারস্থাপন এবং অর্থনৈতিক অঞ্চল এবং হাইটেক পার্কে কুয়েতকে বিনিয়োগের আহবান জানালে কুয়েতের বিদেশ মন্ত্রী এ ক্ষেত্রে বিনিযোগের আগ্রহ প্রকাশ করেন। এসময় বাংলাদেশের ডাক্তার, নার্স এবং তথ্য প্রযুক্তিতে দক্ষ ব্যক্তিরা কুয়েতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারবে বলে তিনি উল্লেখ করেন। ড. মোমেন বাংলাদেশের শ্রমিকদের কৃষিকাজে নিয়োগের আাহবান জানান। কুয়েতকে বাংলাদেশ থেকে ঔষধসামগ্রী ও পিপিই আমদানিরও আহবান জানান ড. মোমেন। কুয়েতের বিদেশ মন্ত্রী বাংলাদেশের প্রবাসী শ্রমিকদের দক্ষতার প্রশংসা করেন। রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে মায়ানমারে প্রত্যাবাসনের বিষয়ে কুয়েতের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে বলে জানান ড. আহমাদ নাসের। প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত হিসেবে কুয়েতে দু’দিনের সফরে রয়েছেন বিদেশমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published.

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

বাংলাদেশে তেল শোধনাগার স্থাপন ও বিনিয়োগে আগ্রহ প্রকাশ কুয়েতের

আপডেট সময় : ০২:৩৬:১৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ৫ অক্টোবর ২০২০

ভয়েস ডিজিটাল ডেস্ক

কুয়েতের নবনিযুক্ত আমির শেখ নাওয়াফ আল-আহমাদ আস-সাবাহর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী ড. এ. কে. আব্দুল মোমেন। এ সময় সদ্য প্রয়াত আমির সাবাহ আল-আহমাদ আল-জাবের আল-সাবাহ’র মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে বাংলাদেশের সরকার, জনগণ ও প্রধানমন্ত্রীর শোক বার্তা পৌছে দেন ড. মোমেন। শেখ সাবাহ’র মৃত্যুতে বাংলাদেশে রাষ্ট্রীয় শোক পালনের বিষয়টিও নতুন আমিরকে অবহিত করেন তিনি। বিদেশমন্ত্রী উল্লেখ করেন, প্রাক্তন আমির প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রতি অত্যন্ত উদার ছিলেন। এসময় তিনি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে নবনিযুক্ত আমিরকে অভিন্দন জানান এবং করোনা পরবর্তীকালে তাঁকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ জানান। প্রবাসী বাংলাদেশিদের সহযোগিতার জন্য কুয়েতের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন ড. মোমেন। সাক্ষাৎকালে ড. মোমেন উল্লেখ করেন, ১৯৭৪ সালে তৎকালীন বিদেশমন্ত্রী ও সদ্যপ্রয়াত আমির শেখ সাবাহ বাংলাদেশে এসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ওআইসি’র সম্মেলনে নিয়ে গিয়েছিলেন। এটা বাংলাদেশ ও কুয়েতের সম্পর্কের ক্ষেত্রে একটি যুগান্তকারী ঘটনা এবং এরপর অনেক মুসলিম দেশ বাংলাদেশকে স্বীকৃতি দেয়। বাংলাদেশ ও কুয়েতের সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক অধিকতর সুদৃঢ় হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী। আমিরকে লেখা বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদের দু’টি চিঠি হস্তান্তর করেন ড. মোমেন। এতে রাষ্ট্রপতি সদ্য প্রয়াত আমিরের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ ও নতুন আমিরকে অভিনন্দন জানান।
বিদেশমন্ত্রী ড. আহমাদ নাসের আল-মোহাম্মেদ আল-আহমেদ আল-জাবের আল-সাবাহ’র সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন ড. মোমেন। কুয়েত ও বাংলাদেশের মধ্যে ফ্লাইট চালু না হওয়ায় ছুটিতে বাংলাদেশে এসে আটকে পড়েছেন। বিষয়টি কুয়েত প্রবাসী বাংলাদেশিদের দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দেখা দিয়েছে। দ্রুততম সময়ে বাংলাদেশের সঙ্গে কুয়েতের ফ্লাইট চালু করতে কুয়েতের বিদেশ মন্ত্রীকে অনুরোধ জানান ড. মোমেন। কুয়েতের বিদেশমন্ত্রী বিষয় দু’দিন পর সভা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে উল্লেখ করেন।
ড. মোমেন কুয়েতকে বাংলাদেশে তেল পরিশোধনাগারস্থাপন এবং অর্থনৈতিক অঞ্চল এবং হাইটেক পার্কে কুয়েতকে বিনিয়োগের আহবান জানালে কুয়েতের বিদেশ মন্ত্রী এ ক্ষেত্রে বিনিযোগের আগ্রহ প্রকাশ করেন। এসময় বাংলাদেশের ডাক্তার, নার্স এবং তথ্য প্রযুক্তিতে দক্ষ ব্যক্তিরা কুয়েতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারবে বলে তিনি উল্লেখ করেন। ড. মোমেন বাংলাদেশের শ্রমিকদের কৃষিকাজে নিয়োগের আাহবান জানান। কুয়েতকে বাংলাদেশ থেকে ঔষধসামগ্রী ও পিপিই আমদানিরও আহবান জানান ড. মোমেন। কুয়েতের বিদেশ মন্ত্রী বাংলাদেশের প্রবাসী শ্রমিকদের দক্ষতার প্রশংসা করেন। রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে মায়ানমারে প্রত্যাবাসনের বিষয়ে কুয়েতের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে বলে জানান ড. আহমাদ নাসের। প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত হিসেবে কুয়েতে দু’দিনের সফরে রয়েছেন বিদেশমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন।