বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ১১:০৪ অপরাহ্ন

ক্লিনফিড চ্যানেলই সম্প্রচারের সুযোগ পাবে: তথ্যমন্ত্রী

ভয়েস ডিজিটাল ডেস্ক
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ৭ অক্টোবর, ২০২১
  • ৫১ Time View

বিদেশি টিভি চ্যানেলের ক্লিনফিড বাস্তবায়নে  তথ্যমন্ত্রীকে  চলচ্চিত্র ও নাট্য অঙ্গণের অভিনন্দন

বাংলাদেশের তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, আইন অনুযায়ী বিদেশি চ্যানেলের ক্লিনফিড পয়লা অক্টোবর থেকে কার্যকর করেছি। এখন ক্লিনফিডই চলছে। যারা আগে ক্লিনফিড পাঠাতো না, ইতোমধ্যেই পাঠানো শুরু করেছে, বাকিরাও পাঠাবে। আমরা নতুন করে কাউকে আর সময় দেবো না। এখন থেকে যেসব চ্যানেল ক্লিনফিড হয়ে আসবে, তারাই শুধু সম্প্রচারের সুযোগ পাবে। সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট মালিকপক্ষ, সংবাদমাধ্যমকর্মী বিশেষ করে সম্প্রচার

সাংবাদিকবৃন্দ, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন, চলচ্চিত্র ও নাট্যাঙ্গণের সবাই আইন বাস্তবায়নের এ কাজে সরকারকে অভিনন্দন জানিয়েছে। একটি মহল এর বিরোধিতা করলেও সকল পক্ষ দেশ ও আইনের স্বার্থে অবস্থান নিয়েছেন বিধায় এটি বাস্তবায়ন করা সম্ভব হয়েছে বলে জানালেন ড. হাছান মাহমুদ।

মন্ত্রী বলেন, দেশের শিল্পী ও সংবাদমাধ্যমের স্বার্থ রক্ষায় সম্প্রতি বিদেশি শিল্পী দিয়ে বিজ্ঞাপন নির্মাণ করা হলে ২ লাখ টাকা এবং সেই বিজ্ঞাপনচিত্র প্রচারে সংশ্লিষ্ট টেলিভিশনকে বিজ্ঞাপন প্রতি ২০ হাজার টাকা সরকারি কোষাগারে দেয়ার বিধান যে রয়েছে। তাও সরকার কড়াকড়িভাবে প্রয়োগ করবে।

বিদেশি টিভি চ্যানেলের বিজ্ঞাপনমুক্ত সম্প্রচার বা ক্লিনফিড বাস্তবায়নে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদকে অভিনন্দন জানিয়েছে চলচ্চিত্র ও নাট্য অঙ্গণের নেতৃবৃন্দ। বুধবার বিকেলে তথ্য মন্ত্রকের সভাকক্ষে চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সভাপতি সোহানুর রহমান সোহান, চলচ্চিত্র শিল্পী

সমিতির সভাপতি মিশা সওদাগর, সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান, উপদেষ্টা চিত্রনায়ক রুবেল, ডিপজল, আনোয়ার সিরাজী, টিভি পেশাজীবী সংগঠনগুলোর সম্মিলিত জোট ফেডারেশন অভ টেলিভিশন প্রফেশনালস অর্গানাইজেশন (এফটিপিও) সভাপতি মামুনুর রশীদ, ডিরেক্টরস গিল্ড

সভাপতি সালাহউদ্দীন লাভলু, যুগ্ম সম্পাদক পিকলু চৌধুরী, টিভি প্রযোজক এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সাজু মুনতাসির, অভিনয় শিল্পী সংঘের সাধারণ সম্পাদক আহসান হাবিব নাসিম, নাট্যকার সংঘের সাধারণ সম্পাদক এজাজ মুন্না এবং প্রেজেন্টার্স প্ল্যাটফর্মের সাধারণ সম্পাদক আনজাম মাসুদ মন্ত্রীকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান।

তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মো: মুরাদ হাসান, মন্ত্রকের অতিরিক্ত সচিব মিজান-উল-আলম এসময় উপস্থিত ছিলেন। এফটিপিও নেতৃবৃন্দ মন্ত্রীকে তাদের অভিনন্দনপত্র আনুষ্ঠানিকভাবে হস্তান্তর করেন। তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা: মুরাদ হাসান এসময় সরকারের আইন প্রয়োগের উদ্যোগের পাশে থাকায় শিল্পী কলাকুশলী ও সকল সংবাদমাধ্যমকর্মীদের ধন্যবাদ জানান।

এফটিপিও সভাপতি মামুনুর রশীদ বলেন, সরকারের এ উদ্যোগ আইন না মানার অপসংস্কৃতি থেকে বেরিয়ে আসার একটি অনন্য নজির গড়েছে। চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সভাপতি সোহানুর রহমান সোহান, চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সভাপতি মিশা সওদাগর, সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খানসহ বক্তারা বৈঠকে সরকারের এই পদক্ষেপের প্রতি তাদের অকুণ্ঠ সমর্থন জানান।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2017 voiceekattor
কারিগরি সহযোগিতায়: সোহাগ রানা
11223